বিমান-ট্রেনের পর, এবার সড়কপথে আ’লীগের নির্বাচনী প্রচার     প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে যুক্তরাজ্য আওমী লীগ নেতা‌দের বৈঠক     লন্ডনে পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী     ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন নিয়ে প্রধানমন্ত্রী, সাংবাদিকদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই     জাতিসংঘ অধিবেশনে যোগ দিতে ঢাকা ছেড়েছেন প্রধানমন্ত্রী     ঢাবি খ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা শুরু     জাতিসংঘের ৭৩তম অধিবেশন, নিউইয়র্কের উদ্দেশে আজ ঢাকা ছাড়ছেন প্রধানমন্ত্রী     পবিত্র আশুরা আজ    

বিএনপি নির্বাচনে আসবেই : প্রধানমন্ত্রী

  জুলাই ০৬, ২০১৮     ৬৪     ৩:২৩ অপরাহ্ণ     রাজনীতি
--

উত্তরণবার্তা  প্রতিবেদক : আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করে বলেছেন, প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ যেভাবেই হোক না কেন বিএনপি আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আসবেই। তাই এ নির্বাচন হবে অত্যন্ত কঠিন। আর এটা মাথায় নিয়েই নির্বাচনের জন্য দলের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের প্রস্তুতি গ্রহণের নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।
 
বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জাতীয় সংসদ ভবনের নবম তলায় সরকারি দলের সম্মেলন কক্ষে আওয়ামী লীগ সংসদীয় দলের বৈঠকে সভাপতির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন। বৈঠক সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।
 
দলীয় সংসদ সদস্যদের সতর্ক করে দিয়ে কঠোর হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে শেখ হাসিনা বলেন, ঐক্যবদ্ধভাবে নির্বাচনের প্রস্তুতি গ্রহণ করতে হবে। প্রত্যেক এমপি-মন্ত্রীর জরিপ রিপোর্ট আমার কাছে আছে। জরিপ ও তৃণমূলের মূল্যায়নের মাধ্যমে যাকে মনোনয়ন দেওয়া হবে, তার পক্ষেই ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। এলাকায় গিয়ে ভোটারদের মন জয় করার চেষ্টা করুন। তাদের বিপদে-আপদে পাশে দাঁড়ান। দলের ত্যাগী কর্মীদের মূল্যায়ন করুন। যেখানে যতটুকু দূরত্ব আছে তা দ্রুত ঘুচিয়ে ফেলুন। দ্রুতই দলের নির্বাচনের মনোনয়ন প্রক্রিয়া শুরু করা হবে।
 
সূত্র জানায়, সভার শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে সুনির্দিষ্ট বেশ কিছু নির্দেশনা দেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি ভোটারদের কাছে সরকারের ৯ বছরের উন্নয়ন-সফলতা ও অগ্রগতিগুলো তুলে ধরার নির্দেশ দেন। বৈঠকে সাবেক প্রতিমন্ত্রী মুন্নুজান সুফিয়ান সরকারের ধারাবাহিকতা রক্ষায় সংসদের মেয়াদ ৫ বছরের পরিবর্তে ১০ বছর করার প্রস্তাব দিলে প্রধানমন্ত্রী তা নাকচ করে দিয়ে বলেন, বঙ্গবন্ধু সংবিধান দিয়ে গেছেন, সংসদের মেয়াদ ৫ বছরই থাকবে। এটার পরিবর্তনের কোন প্রয়োজন নেই।
 
সূত্র জানায়, বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আওয়ামী লীগ জনগণের দল। এ দলে অনেক যোগ্য প্রার্থী রয়েছে। কিন্তু প্রার্থিতার নামে অনেকেই রয়েছেন যারা নির্বাচনে আমাদের প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি ও জামায়াতের বিরুদ্ধে কোনো কথা বলেন না, দলের মন্ত্রী-এমপির বিরুদ্ধে কথা বলে দলের দুর্নাম করছেন। এটা মেনে নেয়া হবে না। দল যাকে মনোনয়ন দেবে তার পক্ষেই ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।
 
তিনি বলেন, আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিজয় খুবই প্রয়োজন। জনগণের মন জয় করে আমাদের আগামী নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে ক্ষমতায় আসতেই হবে। মন্ত্রী-এমপিদের উদ্দেশ্যে করে শেখ হাসিনা বলেন, এখন থেকেই আপনারা নিজ নিজ নির্বাচনী এলাকায় গিয়ে দলকে শক্তিশালী করুন। অন্য দলগুলোর সঙ্গে সুসম্পর্ক গড়ে তুলুন, যাতে আওয়ামী লীগ একা না হয়। তবে জামায়াতের সঙ্গে নয়।
 
উত্তরণবার্তা/এআর

 



সবাইকে ‘বিয়ের দাওয়াত রইলো’

  সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৮

যুগ্ম সচিব হলেন ১৫৭ কর্মকর্তা

  সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৮

নতুন আর্জেন্টিনা পুরনো ব্রাজিল

  সেপ্টেম্বর ০৭, ২০১৮     ৭৮০২

যমজ লাল্টু-পল্টুর দাম ২০ লাখ

  আগস্ট ১২, ২০১৮     ৪৫৩৯

রাশিয়া বিশ্বকাপ ফুটবলের সূচি

  জুন ০৬, ২০১৮     ৪২২৯

পুরনো খবর