সোমবার, ৩০ জানুয়ারি ২০২৩, ১৭ মাঘ ১৪২৯
ঢাকা সময়: ১৭:৫৬
ব্রেকিং নিউজ

জনগণ ব্যালটেই অগ্নি সন্ত্রাসীদের বর্বরতার জবাব দেবে : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী

জনগণ ব্যালটেই অগ্নি সন্ত্রাসীদের বর্বরতার জবাব দেবে : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী

উত্তরণবার্তা প্রতিবেদক : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ. ক. ম  মোজাম্মেল হক বলেছেন, রাজনীতির নামে বিএনপি-জামায়াতের অগ্নি সন্ত্রাস এবং নৃশংস বর্বরতা এদেশের মানুষ কখনোই ভুলবে না।  সেই নৃশংস বর্বরতার জবাব ব্যালটের মাধ্যমেই এ দেশের জনগণ দেবে। আজ বিকেলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ কেন্দ্রীয় কমিটি আয়োজিত "অগ্নি সন্ত্রাসের আর্তনাদ : স্বাধীনতা বিরোধী অপশক্তি বিএনপি-জামাতের অগ্নি-সন্ত্রাস, নৈরাজ্য ও মানবাধিকার লঙ্ঘনের বিচার দাবি" শীর্ষক আলোচনা সভা ও তথ্যচিত্র প্রদর্শনীতে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।  মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুলের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক আল মামুনের সঞ্চালনায়  অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সুপ্রিম কোর্টের আপীল বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক বিএম মোজাম্মেল হক, এ্যাডভোকেট খোদেজা নাসরিন এমপি  প্রমুখ।

মন্ত্রী মোজাম্মেল হক বলেন, বিগত ২০১৪ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনকালিন স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তি বিএনপি-জামাত সমগ্র দেশে আগুন সন্ত্রাস চালিয়ে নিরীহ মানুষদেরকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যা করে, বাংলাদেশকে ব্যর্থ ও অকার্যকর রাষ্ট্রে পরিণত করার চেষ্টা করেছিল। রাজনৈতিকভাবে দেউলিয়া হয়ে এখন আবার বিএনপি পুনরায় পুলিশের ওপর বোমা হামলা ও জনগণের জানমালের ক্ষয়ক্ষতি সাধন করে, দেশকে অস্থিতিশীল করার ষড়যন্ত্র করছে। এরা এদের পুরনো চেহারায় ফিরিয়ে গেছে। মন্ত্রী বলেন, বিএনপি-জামাতের এসব আগুন সন্ত্রাসীদেরকে বিশেষ ট্রাইবুনালে বিচার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। এদের সেই অগ্নি সন্ত্রাস আর যেন কখনো ফিরে না আসে, সেজন্য দেশবাসীকে সতর্ক থাকতে হবে। তিনি বলেন, ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে পরাজিত হয়ে হাঁটু গেড়ে মাথা নত করে চলে গেছে পাকিস্তানি বাহিনী। কিন্তু তাদের প্রেতাত্মারা  এখনো দেশবিরোধী নানা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। তাই রাজনৈতিকভাবে  পাকিস্তানি প্রেতাত্মাদের শেকড় উপড়ে ফেলতে হবে।আলোচনা সভার শুরুতে বিএনপি-জামাতের অগ্নি-সন্ত্রাসের ডকুমেন্টারি প্রদর্শন করা হয়। প্রায় ২০ জন আগুনে দগ্ধ ব্যক্তি উপস্থিত থেকে বিভীষিকাময় দিনগুলোর কথা বর্ণনা করেন।
উত্তরণবার্তা/এআর

  মন্তব্য করুন
     FACEBOOK
আরও সংবাদ