আক্রান্তের সংখ্যায় ইতালিকে ছাড়িয়েছে ভারত     এলাকাভিত্তিক কর্মপরিকল্পনা করছেন বিশেষজ্ঞরা : সেতুমন্ত্রী     বঙ্গোপসাগরে আবারও নিম্নচাপের শঙ্কা     প্রকৃতি ও পরিবেশ সংরক্ষণ করলে ভাইরাস থেকে সুরক্ষা সহজ হতো: হাছান মাহমুদ     ধেয়ে আসছে তিন দৈত্যাকার গ্রহাণু     ম্যাংগো ট্রেনের যাত্রা শুরু     মাস্ক পরা নিয়ে ফের সুর পাল্টালো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা     ২০ লাখ ডোজ করোনা ভ্যাকসিন প্রস্তুত, জানালেন ট্রাম্প    

চার মূলনীতিতে দৃঢ় অবস্থানই উত্তরণের চাবিকাঠি : তথ্যমন্ত্রী

  মার্চ ১১, ২০১৮     ৮১৩     ১১:২৩ অপরাহ্ণ     সংগঠন
--

তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, সংবিধানের চার মূলনীতির ওপর দৃঢ় অবস্থান নিয়ে বাংলাদেশকে স্বল্পোন্নত থেকে উত্তরণ করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
তিনি বলেন, ‘পঁচাত্তরের পরে সামরিক-স্বৈরশাসকদের সংবিধান বহির্ভূত পথে দেশ পরিচালনার ফলে সেসময় বাংলাদেশ তার কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছুতে পারেনি। শেখ হাসিনার সরকার আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে গণতন্ত্রকে সুসংহত করেছেন, সমাজতন্ত্র অনুসরণ করে সামাজিক উন্নয়নে রাষ্ট্রের ভূমিকা পুনঃনির্ধারণ করেছেন, ধর্মনিরপেক্ষতা বজায় রেখে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির পরিবেশ গড়ে জাতিকে বিস্ময়কর উন্নয়নের পথে এগিয়ে নিয়েছেন, আজকের এ উত্তরণ তারই ফসল।’ তিনি আজ রোববার দুপুরে সচিবালয় তথ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে ‘বাংলাদেশের স্বল্পোন্নত থেকে উত্তরণের ঘোষণাপত্র অর্জন উপলক্ষে তথ্য মন্ত্রণালয় পরিকল্পনা’ শীর্ষক সভায় সভাপতিত্বকালে একথা বলেন।
তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম, ভারপ্রাপ্ত তথ্য সচিব মোঃ নাসির উদ্দিন আহমেদ, অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মনোয়ার আহমেদসহ তথ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাবৃন্দ সভায় অংশ নেন।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, শেখ হাসিনার দশ উদ্যোগসহ আন্তরিক ও ধারাবাহিক বহুমুখী প্রচেষ্টার ফলে মানুষের মাথাপিছু আয় বহুগুণে বেড়েছে, মাতৃ ও শিশু মৃত্যুর হার কমেছে, বেড়েছে জীবনযাত্রার মান ও গড় আয়ু।
বাংলাদেশের স্বল্পোন্নত থেকে উত্তরণ উপলক্ষ্যে তথ্য মন্ত্রণালয় বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে উল্লেখ করে হাসানুল হক ইনু বলেন, এর মধ্যে রয়েছে ২২ মার্চ সকালে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে প্রধানমন্ত্রীকে সংবর্ধনা প্রদান অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের উন্নয়ন কার্যক্রমের ছবির একটি সংকলন তথ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীর কাছে হস্তান্তর এবং ঐ দিন দুপুর ২টা থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে ব্যানার, ফেস্টুন ও বাদ্যযন্ত্রসহ তথ্য মন্ত্রণালয়, এর সকল সংস্থার কর্মকর্তা, কর্মচারীবৃন্দ, অভিনয় শিল্পী, কলাকুশলি ও গণমাধ্যমকর্মীর অংশগ্রহণ।
এর আগে ঢাকায় কেন্দ্রীয়ভাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনেও তথ্য মন্ত্রণালয় অংশ নেবে বলে জানান ইনু।
এছাড়া, প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক গণমাধ্যমে এ বিষয়ে প্রচারের জন্য তথ্য অধিদফতর কাজ করছে, বাংলাদেশ টেলিভিশন, বাংলাদেশ বেতার ও গণযোগাযোগ অধিদপ্তর প্রচারণা কার্যক্রম হাতে নিয়েছে এবং চলচ্চিত্র ও প্রকাশনা অধিদপ্তর প্রকাশিত সরকারের উন্নয়ন বিষয়ক দুই ধরণের ৬ লাখ পোস্টার গণযোগাযোগ অধিদপ্তরের মাধ্যমে দেশব্যাপী বিরতণ করছে বলেও সভায় জানান সংশ্লিষ্ট দপ্তর প্রধানগণ।



পুরনো খবর