পায়রা নদীতে শেখ হাসিনার নামে সেতু নির্মাণ     জাতিসংঘের অধিবেশন : সংহতির ওপর জোর দিলেন মহাসচিব     করোনার দ্বিতীয় ধাক্কা এলে যা করবে সরকার     অপ্রয়োজনীয় সড়ক না করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর     নেপালকে করোনার চিকিৎসাসামগ্রী দিল বাংলাদেশ     বিএনপি নেতারা বেগম জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে নোংরা রাজনীতি করছেন : হানিফ     জার্মানির সাথে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধিতে কাজ করতে হবে : স্পিকার     দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত ১৫৫৭, মৃত্যু ২৮    

গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনার দৈনিক সব রেকর্ড ভেঙে গেল

  আগস্ট ০৭, ২০২০     ৬৪     ১৬:৩৬     বিদেশ
--

উত্তরণবার্তা আন্তর্জাতিক ডেস্ক : একের পর এক রেকর্ড ভাঙছে ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। প্রতিদিনই অর্ধলক্ষাধিক মানুষ কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হচ্ছেন। বৃহস্পতিবার রাতেই দেশটিতে করোনা রোগীর সংখ্যা ২০ লাখ ছাড়িয়ে যায়।
দেশটির কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে শুক্রবার সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরও ৬২ হাজার ৫৩৮ জন আক্রান্ত হয়েছে। যা দেশটিতে করোনার দৈনিক সব রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে। গত ২৪ ঘন্টায় প্রাণ হারিয়েছেন ৮৮৬ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় যে ৫ টি রাজ্যে সবচেয়ে বেশি কোভিড আক্রান্তের সন্ধান মিলেছে তার মধ্যে বরাবরের মতো শীর্ষে রয়েছে মহারাষ্ট্র।

এদিকে গত একদিনে রেকর্ড সংক্রমণ দেখা গেছে পশ্চিমবঙ্গেও। এ রাজ্যে বৃহস্পতিবার মোট ২ হাজার ৯৫৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। মারা গেছে ৫৬ জন।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান বলছে, বর্তমানে ভারতে মোট করোনা রোগীর সংখ্যা ২০ লাখ ৩০ হাজার ১ জন।

গত ১৭ জুলাই এ সংখ্যা ছিল ১০ লাখ। ৭ অগাস্ট দেশে সেই সংখ্যা বেড়ে ২০ লাখ ছাড়াল। অর্থাৎ মাত্র ২১ দিনে দ্বিগুণ হয়ে গেল করোনা রোগীর সংখ্যা।

পরিসংখ্যান বলছে, গত ৯ দিনে ভারতে ৫ লাখের বেশি করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে। দৈনিক ৫০ হাজারের বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছে এই কয়দিনে।

বৃহস্পতিবার ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেয়া তথ্যানুযায়ী, একদিনে ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫৬,০০০ এর বেশি। আর সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১৩ লাখ ২৮ হাজার। মারা গেছেন ৪০ হাজারের বেশি মানুষ।

এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি করোনা আক্রান্ত রাজ্যগুলোর তালিকায় রয়েছে মহারাষ্ট্র, অন্ধ্রপ্রদেশ, কর্নাটক, তামিলনাড়ু এবং উত্তরপ্রদেশ।

সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত রাজ্য মহারাষ্ট্র।

সংবাদমাধ্যম জি নিউজ জানিয়েছে, মহারাষ্ট্রে এখন পর্যন্ত করোনা রোগীর সংখ্যা ৪ লক্ষ ৭৯ হাজার ৭৭৯। সুস্থ হয়েছেন ৩ লাখ ১৬ হাজার ৩৭৫ জন। মোট প্রাণ হারিয়েছেন ১৬ হাজার ৭৯২ জন। সেখানে এখন সক্রিয় করোনা আক্রান্তর সংখ্যা ১ লক্ষ ৪৬ হাজার ৬১২।

মহারাষ্ট্রের পরেই সর্বোচ্চ করোনা আক্রান্তর ঠিকানা তামিলনাড়ু। সে রাজ্যে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২ লাখ ৭৯ হাজার ১৪৪জন। সুস্থ হয়েছেন ২ লাখ ২১ হাজার ৮৭ জন। প্রাণ হারিয়েছেন ৪ হাজার ৫৭১ জন। সেখানে চিকিৎসাধীন ৫৩ হাজার ৪৮৬ জন।

রাজধানী দিল্লিতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ লাখ ৪১ হাজার। এখন পর্যন্ত মারা গেছে ৪ হাজার ৫৯ জন।

অন্ধ্র প্রদেশে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ৯৬ হাজার ৭৮৯। সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ১২ হাজার ৮৭০ জন। মারা গেছেন ১ হাজার ৭৫৩ জন। ৮২ হাজার ১৬৬ জন চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

আক্রান্তের পর মৃতের সংখ্যাও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে ভারতে। এনডিটি জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত ভারতে মোট ৪১,৫৮৫ জনের প্রাণহানি ঘটেছে করোনায়। শুধু বৃহস্পতিবারই মারা গেছে ৮৮৬ জন।

তবে এমন সব দুঃসংবাদের ভিড়ে স্বস্তির বিষয় হচ্ছে, ভারতে সুস্থতার হারও বাড়ছে।

সরকারি তথ্য জানিয়েছে, মহামারী শুরুর পর থেকে দেশটিতে ১৩.৭৮ লাখের বেশি করোনা রোগী সুস্থ হয়েছে। শুক্রবার সকাল পর্যন্ত করোনাযুদ্ধে জয়ের হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬৭.৯৮ শতাংশে।

আর্ন্তজাতিক জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডওমিটারসে দেয়া সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী, ভারতে এখন পর্যন্ত ২০ লাখ ৩০ হাজার ১ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। এ পর্যন্ত মারা গেছে ৪১ হাজার ৬৪৩ জন। সুস্থ হয়েছে ১৩ লাখ ৪৮ হাজার ৬৪২ জন। হাসপাতালে ও হোম কেয়ারে চিকিৎসাধীন ৭ লাখ ৭১ হাজার ২৫৮ জন। এদের মধ্যে ৮ হাজার ৩১৮ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

উত্তরণবার্তা/সাব্বির



ককটেল-ইয়াবাসহ আটক ৮

  সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০

দীপিকাকে কঙ্গনার খোঁচা

  সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০

একনেক সভায় উঠছে ৯ প্রকল্প

  সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০     ১১০

এক চার্জেই ফোন চলবে ৩ মাস

  সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০     ৮৩

ঘর বাঁধলেন অভিমন্যু ও মানালি

  সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০     ৪৬

পুরনো খবর