যুক্তরাজ্যে মেডিকেল চেকআপ শেষে দেশে ফিরেছেন রাষ্ট্রপতি     তার মুখে দুর্নীতি নিয়ে কথা মানায় না : ওবায়দুল কাদের     নির্বাচন কমিশন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানে সক্ষম : প্রধানমন্ত্রী     ফ্রান্সে আনন্দ-উৎসব চলছেই     উচ্চতর ডিগ্রির আসা জাগালো কারিগরির ৮৯ হাজার শিক্ষার্থী     এইচএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন যেভাবে     দৃষ্টিশক্তি বাড়ায় মিষ্টি কুমড়া     বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ ও তার ব্যবহার    

জয়ের ম্যাচে দানবীয় ব্যাটিং ফিঞ্চের

  জুলাই ০৩, ২০১৮     ৩২     ৯:০৯ অপরাহ্ণ     ক্রীড়া
--

উত্তরণবার্তা ক্রীড়া ডেস্ক : আজ মঙ্গলবার হারারেতে ত্রিদেশীয় টি-২০ সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ৭৬ বলে ১৭২ রানের দানবীয় ইনিংস খেলেন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। এমন ইনিংসে টি-২০ ইতিহাসে বেশ কয়েকটি বিশ্ব রেকর্ডের মালিক হয়েছেন ফিঞ্চ। ২২৯ রান কের অস্ট্রেলিয়া জিতেছে ১০০ রানের ব্যবধানে।

হারারে স্পোর্টস ক্লাব মাঠে টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিং বেছে নেয় জিম্বাবুয়ে। ব্যাট হাতে অস্ট্রেলিয়ার ইনিংসের শুরু করেন ফিঞ্চ ও ডি’আর্চি শর্ট। উদ্বোধনী জুটিতে ফিঞ্চ ও শর্ট ১১৬ বলে ২২৩ রান যোগ করেন। টি-২০ ক্রিকেটে যে কোন উইকেটে এটি সর্বোচ্চ রান। অর্থাৎ জুটিতে বিশ্ব রেকর্ড গড়েন ফিঞ্চ ও শর্ট। আগের রেকর্ডটি ছিলো অবিচ্ছিন্ন ১৭১ রানের। ২০১৬ সালে হ্যামিল্টনে পাকিস্তানের বিপক্ষে রেকর্ড জুটি গড়েছিলেন নিউজিল্যান্ডের মার্টিন গাপটিল ও কেন উইলিয়ামসন।

রেকর্ড জুটির মধ্যে ১৭২ রান অবদান ছিলো ফিঞ্চের। ২২ বলে হাফ-সেঞ্চুরি ও ৫০ বলে সেঞ্চুরি করা ফিঞ্চের ইনিংসে ১৬টি চার ও ১০টি ছক্কার মার ছিলো। ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ রানেরও বিশ্ব রেকর্ড গড়েন ফিঞ্চ। অবশ্য এ ক্ষেত্রে নিজের রেকর্ডটিই ভাঙ্গেন তিনি। টি-২০ ইতিহাসে আগের সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রান ছিলো ফিঞ্চেরই। ২০১৩ সালে সাউদাম্পটনে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৬৩ বলে ১১টি চার ও ১৪টি ছক্কায় ১৫৬ রান করেছিলেন তিনি। তবে ইনিংসে বাউন্ডারি ও ওভার বাউন্ডারিতে সবচেয়ে বেশি রানের রেকর্ডটি অল্পের জন্য ভাঙ্গতে পারেননি ফিঞ্চ। পুরনো রেকর্ডটি নিজেই করেছিলেন তিনি। ২০১৩ সালে ১৫৬ রানের ইনিংসে ১১টি চার ও ১৪টি ছক্কায় বাউন্ডারি ও ওভার বাউন্ডারিতে ১২৮ রান তুলেন ফিঞ্চ। এবার ১৬টি চার ও ১০টি ছক্কায় ১২৪ রান করেন তিনি।

টি-২০ ইতিহাসে এক ইনিংসে সর্বোচ্চ বাউন্ডারির নয়া রেকর্ড গড়েন ফিঞ্চ। ১৭২ রানের ইনিংসে ১৬টি চার মেরেছেন তিনি। আগের রেকর্ডটি ছিলো দক্ষিণ আফ্রিকার হার্সেল গিবসের। ২০০৭ সালে জোহানেসবার্গে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ৫৫ বলে অপরাজিত ৯০ রানের ইনিংসে ১৪টি চার মেরেছিলেন গিবস। ছক্কায় এবার রেকর্ড গড়তে না পারলেও, ফিঞ্চের আগের রেকর্ডটি অক্ষুন্ন আছে। ২০১৩ সালে সাউদাম্পটনে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১৪টি ছক্কা মারেন ফিঞ্চ। যা টি-২০ ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি ওভার বাউন্ডারি।

অধিনায়ক হিসেবে এ ম্যাচে ১৭২ রান করেন ফিঞ্চ। তাই অধিনায়ক হিসেবেও টি-২০ ক্রিকেটে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রানের রেকর্ড দখলে নিয়ে নিলেন তিনি। আগেরটি ছিলো অস্ট্রেলিয়ার শেন ওয়াটসনের। ২০১৬ সালে সিডনিতে ভারতের বিপক্ষে ৭১ বলে ১০টি চার ও ৬টি ছক্কায় অপরাজিত ১২৪ রান করেছিলেন ঐ ম্যাচের অধিনায়ক ওয়াটসন। ফিঞ্চের ব্যক্তিগত রেকর্ডের ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার দলীয় কোন রেকর্ড হয়নি। দলীয় রান ২২৯ রান জায়গায় করে নেয় ১৬তম স্থানে। টি-২০ ক্রিকেটে সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহ ৩ উইকেটে ২৬৩ রান। ২০১৬ সালে পাল্লেকেলেতে শ্রীলংকার বিপক্ষে বিশ্ব রেকর্ডের স্কোর করেছিলো অসিরা।

ফিঞ্চের রেকর্ডের পেছনে অবদান ছিলো আরেক ওপেনার শর্টের। স্ট্রাইক পরিবর্তন করে ৩টি চার ও ২টি ছক্কায় ৪২ বলে ৪৬ রান করেন শর্ট। এমন রেকর্ডের ম্যাচে জিম্বাবুয়ের সামনে ২৩০ রানের টার্গেট দিয়ে ১০০ রানে জয় তুলে নেয় অস্ট্রেলিয়া। জয়ের জন্য বিশাল লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে জিম্বাবুয়ে ২০ ওভারে ৯ উইকেটে ১২৯ রান করতে পারে। বিশাল রানের লক্ষে ব্যাটিংয়ে নেমে জিম্বাবুয়ে নিয়মিত উইকেট হারিয়ে মাত্র ১২৯ রান তুলেছে। দলের পক্ষে মায়ার সর্বোচ্চ ২৮ রান করেন।
উত্তরণবার্তা/আসো



রাশিয়া বিশ্বকাপ ফুটবলের সূচি

  জুন ০৬, ২০১৮     ৩৯৭১

আমের কেজি ৭ টাকা

  জুন ২৭, ২০১৮     ১৪৭৬

পুরনো খবর