বন্যার্তদের মাঝে ১১ হাজার ৬ টন চাল বিতরণ করেছে সরকার     শনিবার বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেসার ৯০তম জন্মবার্ষিকী     সিনহার বিষয়ে সরকার অত্যন্ত আন্তরিক : ওবায়দুল কাদের     নিখোঁজ কয়েদির সন্ধানে অভিযান চলছে : কারা মহাপরিদর্শক     ১৬ অঞ্চলে বয়ে যেতে পারে ঝড়ো হাওয়া     শিমুলিয়া ঘাটে ঢাকামুখী যাত্রীচাপ বাড়ছে     শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী রুটে ফেরি চলাচল শুরু     রাজধানীসহ ১৯ অঞ্চলে বৃষ্টির পূর্বাভাস    

১৬ কোটি মানুষকে ইন্টারনেটের আওতায় আনতে কাজ চলছে: সজীব ওয়াজেদ জয়

  জানুয়ারি ১৩, ২০২০     ১২৫     ১২:৪৫     শিক্ষা
--

উত্তরণবার্তা তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক : প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তিবিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় বলেছেন, দেশের ১৬ কোটি মানুষকে ইন্টারনেট নেটওয়ার্কের আওতায় আনতে সরকার কাজ করছে। তিনি বলেন, বর্তমানে দেশের প্রায় ১০ কোটি মানুষ ইন্টারনেট ব্যবহার করছেন।

দেশের তরুণ শিক্ষার্থীদের সবার দাবি অনুযায়ী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে ওয়াইফাই নেটওয়ার্ক চালু করা হল। আমাদের এই কার্যক্রম চলমান থাকবে।

সচিবালয়ে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে রোববার দেশের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ফ্রি ওয়াইফাই জোন সংযোগ কার্যক্রমের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে দেশের ১৪৬টি সরকারি কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় ও ইন্সটিটিউশন একযোগে ১০ মেগাবাইট গতিসম্পন্ন ওয়াইফাই নেটওয়ার্ক উদ্বোধন করেন তিনি।

সজীব ওয়াজেদ জয় বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশে সবার দাবি, সব জায়গায় ওয়াইফাই জোন করে দেয়ার। বিশেষ করে ছাত্রছাত্রীদের। সেই কারণেই আমরা এই প্রকল্প হাতে নিয়েছিলাম। ডিজিটাল বাংলাদেশের যাত্রা যখন আরম্ভ করি তখন অনলাইন তো দূরের কথা ইন্টারনেট কানেকশনেরই অভাব ছিল। মাত্র ১ দশমিক ৩ শতাংশ মানুষ ইন্টারনেট অ্যাকসেস পেত, এখন সেটা প্রায় ৬০ শতাংশে চলে এসেছে।

তিনি বলেন, আমরা গত ১০ বছরে ১০ কোটির বেশি মানুষকে অনলাইনে এনেছি। আমাদের তরুণদের যে দাবি, সব জায়গায় তাদের ওয়াইফাই করে দেয়া, সেটা কিন্তু আমাদের আওয়ামী লীগ সরকার করে যাচ্ছে।

এই প্রকল্প হল সেটারই অংশ। সরকারি সব বিশ্ববিদ্যালয়ে আমাদের টেলিযোগাযোগ বিভাগ ছাত্রছাত্রীদের জন্য ওয়াইফাই জোন করে দিচ্ছে। এই কাজ চলমান থাকবে। সারা দেশেই আমরা ইন্টারনেট আনছি, ইউনিয়ন পর্যন্ত ফাইবার নিয়ে যাচ্ছি। জয় বলেন, আমার স্বপ্ন হচ্ছে দেশের ১৬ কোটি মানুষকেই আমরা অনলাইনে আনব। এটা হচ্ছে আমাদের ওয়াদা।

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব মো. নূর-উর-রহমানসহ বিভাগের অন্যান্য দফতর ও প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

রাষ্ট্রায়ত্ত টেলিযোগাযোগ সংস্থা বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন কোম্পানি লিমিটেড (বিটিসিএল) এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে।

উত্তরণবার্তা/এআর



৭ আগস্ট: হাসতে নেই মানা

  আগস্ট ০৭, ২০২০     ১০৮

ত্রিভুজ প্রেমের গল্পে তারিন

  আগস্ট ০৭, ২০২০     ৫১

পুরনো খবর