বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে পণ্যবাহী ট্রেন চলাচলে রেকর্ড     যুবলীগের খাদ্য ও বস্ত্র বিতরণ     স্মার্ট হাসপাতালে চালকবিহীন গাড়ি     ক্রিকেটারদের দ্রুত মাঠে ফেরাতে চায় বিসিবি     সীমান্তে চীন-ভারত উত্তেজনা, ৩৩টি যুদ্ধবিমান কিনছে ভারত     ঘনবসতিপূর্ণ এলাকায় পশুর হাট নয় : আতিকুল ইসলাম     ডিএসসিসিকে ২০ হাজার মাস্ক প্রদান     ভিজিডির চাল আত্মসাতের অভিযোগে ইউপি চেয়ারম্যান বরখাস্ত    

মশা নিধনে নতুন ওষুধের পরীক্ষা চালাল ডিএসসিসি

  আগস্ট ০৩, ২০১৯     ১৩৫     ৭:২৯ অপরাহ্ণ     জাতীয় সংবাদ
--

উত্তরণবার্তা প্রতিবেদক : সারাদেশে ক্রমবর্ধমান ডেঙ্গুর প্রকোপ বৃদ্ধির মধ্যেই মশা নিধনে নতুন ওষুধের পরীক্ষা চালিয়েছে দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে (ডিএসসিসি)।

শুক্রবার সকালে নগর ভবনে তিনটি খাঁচার প্রতিটিতে ৫০টি করে মশা রেখে এই পরীক্ষা চালানো হয়।

ডিএসসিসি কর্মকর্তারা জানান, নগর ভবনের মূল ফটকের সামনে মশারি দিয়ে তিনটি খাঁচা তৈরি করে প্রতিটিতে ৫০টি মশা রাখা হয়েছে। পরে তিন ফুট দূরত্ব থেকে ফগার মেশিন দিয়ে  খাঁচায় ওষুধ ছিটিয়ে দেন সিটি করপোরেশনের একজন মশকনিধনকর্মী।

ডিএসসিসি দাবি করেছে, নতুন এই ওষুধ বিদেশ থেকে আনা হয়েছে। তা এখন পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর্যায়ে আছে। ‘বায়ার করপোরেশন’ কোম্পানির এই মশার ওষুধের ৩০ মিনিট পরীক্ষা শেষে সর্বোচ্চ ২৬ শতাংশ মশা মারা গেছে। পরীক্ষার ২৪ ঘণ্টা শেষে ওষুধের গুণগত মানের চূড়ান্ত ফলাফল জানা যাবে।

ভারত থেকে আসা গবেষক দলের সদস্য শুভ দে সাংবাদিকদের বলেন, মশার ওষুধ বৃষ্টির মধ্যে ছিটানো যাবে না। এ ছাড়াও ১৫ কিলোমিটার বেগে যখন বাতাস প্রবাহিত হয় তখনো মশার ওষুধ ছিটানো থেকে বিরত থাকতে হবে। বায়ার করপোরেশনের ওষুধ মশকনিধনে কার্যকর।

ওষুধ পরীক্ষার সময় ডিএসসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোস্তাফিজুর রহমান, সচিব মোস্তফা কামাল মজুমদার, প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. শরীফ আহমেদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উত্তরণবার্তা/দীন



পুরনো খবর